বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০৪:৪২ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
চকরিয়ায় সিএনজি আটকিয়ে ছিনতাইয়ের প্রস্তুতি অস্ত্রসহ চার ছিনতাইকারী গ্রেফতার চকরিয়ায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দলিল লেখকের সহকারীর মৃত্যু মিডিয়াতে আবর্জনা ঢুকে গেছে সেটা পরিস্কার করতে হবে–প্রেস কাউন্সিল চেয়ারম্যান নিজামুল হক স্মার্ট বাংলাদেশ বির্নিমানে স্মার্ট কর্মী তৈরী করতে হবে–বিশেষ বর্ধিত সভায় সিআইপি এবার বৃক্ষরোপণে প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় পুরস্কার পেল লামার কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশন সাংবাদিক বেলালের পিতার ৫ম মৃত্যুবার্ষিকীর মিলাদ ও মাহফিল চকরিয়া শিক্ষার্থীদের মাঝে স্কুল ব্যাগ বিতরণ বর্তমান সরকার শিক্ষা ব্যবস্থাকে আধুনিক করেছে–রেজাউল করিম রোহিঙ্গা খায়রুল চন্দ্রিমা এলাকায় অর্ধশত রোহিঙ্গাকে স্থায়ী করেছেন চকরিয়ায় ফাঁস লাগিয়ে যুবকের আত্মহত্যা

কুকুরের শরীরে টিকা প্রয়োগ নির্মূল করা হবে জলাতঙ্ক রোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক :
  • সময় : রবিবার, ২ জুন, ২০২৪
  • ৮ পঠিত

জলাতঙ্ক একটি মরণব্যাধী রোগ। জলাতঙ্ক প্রতিরোধে এবার কুকুর নিধনের পালা শেষ। নতুন পদ্ধতিতে কুকুরে শরীরে টিকা প্রয়োগ করে নির্মূল করা হবে জলাতঙ্ক। এ পদ্ধতিতে কুকুর গুলোকে মেরে না ফেলে টিকা দিয়ে বাঁচিয়ে রাখা হবে। প্রতিবছর সিটি করপোরেশন ও পৌরসভা কুকুর নিধনের উদ্যোগ নিতেন। এবার কুকুরের শরীরে প্রথম বারের মত রবিবার (৩ জুন) থেকে ৮ জুন পর্যন্ত চকরিয়া উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় জলাতঙ্ক নির্মূলে টিকাদান কর্মসূচী শুরু হচ্ছে।
পৃথিবীতে প্রতিবছরে প্রায় ৫৯ হাজার মানুষ জলাতঙ্ক রোগে মারা যায়। জলাতঙ্ক রোগটি মূলত কুকুরের কামড় বা আচঁড়ের মাধ্যমে ছড়ায়। এছাড়াও বিড়াল, শিয়াল, বেজি, বানরের কামড় বা আঁচড়ের মাধ্যমেও এ রোগ হতে পারে। বাংলাদেশে প্রতিবছর প্রায় ৪ থেকে ৫ লক্ষ মানুষ কুকুর, বিড়াল, শিয়ালের কামড় বা আঁচড়ের শিকার হয়ে থাকে, যাদের মধ্যে বেশির ভাগই শিশু।
এছাড়াও প্রায় ২৫ হাজার গবাদি প্রাণী এ রোগের শিকার হয়ে থাকে। ইতোমধ্যে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, স্থানীয় সরকার বিভাগ, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়, মৎস্য ও প্রাণী মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে ব্যাপক হারে কুকুরের জলাতঙ্ক প্রতিষেধক টিকাদান কার্যক্রম শুরু হয়েছে।
এ উপলক্ষে রবিবার ২ জুন সকাল সাড়ে দশটায় চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দিনব্যাপী অবহিতকরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের প: প: কর্মকর্তা ডা. শোভণ দত্তের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন চকরিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফজলুল করিম সাঈদী ও বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: ফখরুল ইসলাম। এছাড়াও উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা, ইউপি চেয়ারম্যান, সাংবাদিক, স্বাস্থ্য পরিদর্শক ও বিভিন্ন শ্রেণির পেশার লোক উপস্থিত ছিলেন।
৪৫টি টিম পাঁচদিনের কর্মসূচীতে টিকাদান অংশ নেবেন। চকরিয়া উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার কুকুরকে ভেকসিনের আওতায় আনা হবে। ভেকসিন প্রয়োগে প্রতিটি টিমে ২ জন দক্ষ কুকুর ধরার লোক, ১ জন স্থানীয় কুকুর ধরার লোক, ১ জন টিকাদানকারী, ১ জন ডাটা কালেক্টর ও ১ জন ভ্যান চালক নিয়োজিত থাকবেন। যাতে কুকুরটি পরবর্তী দ্বিতীয় ডোজের আওতায় না আসে। সেজন্য টিকা প্রয়োগ করা কুকুরকে লাল রং দিয়ে চিহিৃত করা হবে।

 

https://www.facebook.com/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2018 News Smart
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com